বুধবার, ১৫ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ঠাকুরগাঁওয়ে পদ্মা সেতু উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ইফতার ও দোয়া মাহফিলের ব্যানার
বিব্রত আগত অতিথিরা

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ॥ পদ্মা সেতু উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সারাদেশের ন্যায় ঠাকুরগাঁওয়েও জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠিত হলেও ইফতার ও দোয়া মাহফিল এর ব্যানার দেখে বিব্রত হয় অতিথিরিা।

শনিবার ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসনের আয়োজনে সকালে জেলা প্রশাসন কার্যালয় থেকে র‌্যালি, সন্ধ্যায় জেলা স্কুল বড় মাঠে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান এবং রাতে আতশবাজি ফোটানোর আয়োজন করা হয়। এর আগে সকালে জেলা স্কুল বড় মাঠে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার করা হয় এবং সেখানে জেলার বিভিন্ন স্তরের হাজারো মানুষ ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা জমায়েত হয়।

জেলা প্রশাসনের আয়োজনে কোন কমতি না থাকলেও বিপত্তি ঘটে ব্যানারে। অনুষ্ঠানের স্টেজের সামনে এবং অতিথিদের আসনের আগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল এর চকচকে ব্যানার দেখে বিব্রত হয়েছেন অনেকে আবার অনেকেই মনে করেছেন হয়তো রোজা রাখারও কোনো বিষয় রয়েছে এ অনুষ্ঠানে। আর তাই সে ব্যনারটিকে ঘিরে কৌতহলের শেষ থাকেনা আগত অতিথিদের।

অনুষ্ঠানে আসা বিথি আক্তার নামের এক স্কুল শিক্ষার্থী জানায়, বুঝতে পারছিনা কিসের দোয়া মাহফিল হবে। আমরা তো এসেছি পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠান দেখতে।

আরেক শিক্ষার্থীর সাথে আসা অভিভাবক জানান, এ ধরনের একটা বিষয়ে জেলা প্রশাসনের গুরুত্বের সাথে দেখা উচিৎ ছিলো। ছোট্ট ছোট্ট ছেলে মেয়েরা এখান থেকে কি শিক্ষা পাবে।

এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক মাহবুবুর রহমানের সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি জানান, এ ভুলটি একটি ব্যানারে ছিলো। ইফতার মাহফিলের যে ব্যানার বোর্ডটি ছিলো এর ওপরে অন্য ব্যানার লাগানো ছিলো। আমরা খুজে বের করবো এ ঘটনাটি কে ঘটিয়েছে। যদিও সেখানে সিসি ক্যামেরা ছিলোনা তবুও আমরা বিষয়টি খতিয়ে দেখবো।

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষঃ