সোমবার, ১১ই ডিসেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

ঠাকুরগাঁওয়ে ব্রীজের নীচ থেকে বস্তাবন্দি কিশোরী উদ্ধার

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ॥ ঠাকুরগাঁওয়ে ব্রীজের নীচ থেকে বস্তার ভেতর থেকে মাহফুজা খাতুন (১৬) নামের এক কিশোরীকে জীবিত অবস্থায় উদ্ধার করেছে স্থানীয়রা।

বৃহস্পতিবার সকালে শহরের টাঙ্গন নদীর ব্রীজের নীচ থেকে বস্তাবন্দি অবস্থায় তাকে উদ্ধার করা হয়। সে বর্তমানে ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। মাহফুজা খাতুন দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার বিজয়পুর গ্রামের মৃত মোস্তফা কামালের মেয়ে। সে ঠাকুরগাঁও পৌরশহরের খাতুনে জান্নাত কামরুন্নেছা কওমী মহিলা মাদরাসায় কিতাব বিভাগে পড়াশোনা করে।

প্রত্যক্ষদর্শী সুত্র জানায়, সকালে টাঙ্গন ব্রিজের নিচে বস্তাটি মুখ বাঁধা অবস্থায় দেখতে পেলে স্থানীয়দের মনে কৌতুহলের সৃষ্টি হয়। স্থানীয়রা বস্তাবন্দি লাশ ভেবে এগিয়ে গিয়ে বস্তার মুখ খোলে। এসময় ওই কিশোরী নড়াচড়া করলে তাকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হয়।

মাহফুজার মা সালমা খাতুন জানান, এর আগে গুলজার নামের এক ছেলে আমার মেয়েকে পালিয়ে বিয়ে করেছিলো। কিন্তু পরে সেই ছেলে আমার মেয়েকে ছেড়ে চলে যায়। সেই ছেলেই আমার মেয়ের ক্ষতি করার জন্যে এমনটা করতে পারে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামাল হোসেন বলেন, বস্তার ভেতর থেকে উদ্ধারকৃত মেয়েটি বলছেন যে, তার সাবেক স্বামীসহ আরো কয়েকজন তাকে প্রলোভন দেখিয়ে রাতে মাদ্রাসা থেকে বের করে টাঙ্গন ব্রিজের নিচে বস্তায় ভরে রেখে চলে যায়। কিন্তু তারা তাকে কোন প্রকার নির্যাতন করেনি। ওই মেয়েটির এমন স্বীকারোক্তি বা বক্তব্য রহস্যজনক। বিষয়টি আমরা গভীরভাবে খতিয়ে দেখছি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষঃ