সোমবার, ১৫ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ভালুকায় সৎ মেয়েকে হত্যা করে লাশ জঙ্গলে পুতে রাখে বাবা

 জাহিদুল ইসলাম খান, ভালুকা প্রতিনিধি  
ময়মনসিংহের ভালুকায় কুলাঙ্গার  বাবা শফিকুল ইসলাম সৎ মেয়ে মিনু আক্তারকে শ্বাসরোধ করে মাটিতে পূঁতে রাখে। এ ঘটনায় ভালুকা মডেল থানা পুলিশ  ২৫জুন সকালে কুড়িগ্রামে ওলিপুর থানার কাছুয়া শেখের ছেলে শফিকুল ইসলামকে  গ্রেফতার করে। শফিকুল পুলিশের  কাছে স্বীকারোক্তি মূলক জবান বন্দি দিয়েছে। মা মাহমুদা বেগম অনুপস্থিতিতে শফিকুল গত ৮জুন রাতে ঘরে ঘুমন্ত মিনুকে শ্বাস রোধে হত্যা করে ভাড়া বাসার পাশের  জঙ্গলে ফেলে আসেন এবং পরদিন রাতে ওই লাশ একই এলাকায় প্রস্তাবিত একটি কারখানায় বাউন্ডারির ভিতর মাটি গর্ত করে পুঁতে রাখে। এদিকে, মিনুকে চাপা দেওয়া মাটি বৃষ্টির পানিতে সরে গিয়ে তার পা বেড় হয়ে আসে। পরে, স্থানীয়রা গত বৃহষ্পতিবার (২৩ জুন) সকালে লাশ দেখে পুলিশকে দেয়। খবর পেয়ে ভালুকা মডেল থানা পুলিশ ওইদিন দুপুরে লাশটি উদ্ধার এবং হত্যা মামলা নিয়ে তদন্ত শুরু করে।  পরে, গোপন সূত্র এবং তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে কুড়িগ্রামের নিজ বাড়ি থেকে মিনুর সৎ বাবা শফিকুল ইসলামকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠায়।                                             

ভালুকা মডেল থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) জাহাঙ্গীর আলম জানায়,সৎ বাবা শফিকুল ইসলামকে আজ কুড়িগ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করে ভালুকা মডেল থানা পুলিশ। সে প্রাথমিকভাবে হত্যার কথা স্বীকারোক্তি দিয়েছে।তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
উল্লেখ্য,,ভালুকা মডেল থানা পুলিশ গত ২৩জুন হবিরবাড়ি এলাকা থেকে অজ্ঞাত এক কিশোরির লাশ উদ্ধার করে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

সর্বশেষঃ